পলাশবাড়ীতে জমিজমা সংক্রান্ত বিরোধের জের ধরেমারপিট, প্রাণ নাশের হুমকি, থানায় এজাহার দায়ের


প্রকাশের সময় : আগস্ট ১৪, ২০২৩, ৯:২১ অপরাহ্ণ / ১৯৯
পলাশবাড়ীতে জমিজমা সংক্রান্ত বিরোধের জের ধরেমারপিট, প্রাণ নাশের হুমকি, থানায় এজাহার দায়ের

সংবাদ বিজ্ঞপ্তিঃ পলাশবাড়ী উপজেলার হরিনাথপুর গ্রামের মোস্তাফিজার রহমানের সাথে একই গ্রামের মৃত নজল হকের ছেলে এনামুল হক গংদের সাথে দীর্ঘদিন থেকেই জমিজমা সংক্রান্ত জের ধরে মনোমালিন্য ও মামলা মোকদ্দমা চলে আসছে।
এজার সূত্রে জানা গেছে, গত ১১ আগস্ট রাত ৯ টার সময় হরিনাথপুর চৌরাস্তা লেচুর মোড় নামক ¯’ানে মোঃ জাহিদ হাসানের চায়ের দোকানের সামনে মোস্তাফিজার রহমানকে একা পেয়ে পথ রোধ করে এনামুল হক গংরা। প্রতিপক্ষ নজরুল ইসলামের হুমুকে তার দলবল বাশের লাঠি, লোহার রড ও দেশীয় অস্ত্রদ্বারা শরীরের বিভিন্ন ¯’ানে আঘাত করে। আঘাতে মাটিতে শুয়ে পড়লে উক্ত ব্যাক্তিরা এলোপাথারীভাবে মারপিট করে। তার আত্মচিৎকারে আশেপাশের লোকজন উদ্ধার করে গাইবান্ধা সদর হাসপাতালে চিকিৎসার জন্য ভর্তি করায়।
উক্ত ঘটনায় মোস্তাফিজার রহমানের ছেলে আলী রেজা সরকার পরিবার নিয়ে মানবেতন জীবন যাপন করছেন এবং যেকোন মুর্হুতে আবারও মারপিটসহ প্রাণনাশের ঘটনা ঘটতে পারে বলেন মনে করেন।
এ ঘটনায় আলী রেজা সরকার প্রতিকার চেয়ে এনামুল হক, নজরুল ইসলাম, মোজাফফর রহমান, ছানা মিয়া, আজাদুল হক ও রাজিব মিয়াকে আসামী করে পলাশবাড়ী থানায় একটি এজাহার দায়ের করেন এবং প্রশাসনের আইনি ব্যব¯’া গ্রহণের জন্য জরুরী হস্তক্ষেপ কামনা করেন।
পলাশবাড়ী থানার অফিসার ইনচার্জ আরজু মো. সাজ্জাদ হোসেন হরিনাবাড়ী পুলিশ তদন্ত কেন্দ্রের এসআই হাসনাতকে বিষটি তদন্ত করার নির্র্দেশ দেন।