রাণীশংকৈলে মাদক ব্যবসায়ীকে ধরতে গিয়ে পুলিশ সদস্য আহত


প্রকাশের সময় : আগস্ট ৬, ২০২৩, ৫:১৮ অপরাহ্ণ / ৫৪
রাণীশংকৈলে মাদক ব্যবসায়ীকে ধরতে গিয়ে পুলিশ সদস্য আহত

রাণীশংকৈল(ঠাকুরগাঁও)প্রতিনিধি ঠাকুরগাঁওয়ের রাণীশংকৈল উপজেলার মীরডাঙ্গী এলাকায় ৬আগষ্ট রবিবার মধ্যে রাতে মাদক ব্যবসায়ী কে ধরতে গিয়ে পুলিশের ২ এএসআই আহত হওয়ার খবর পাওয়া গেছে।জানাযায়, মারামারি, মাদকসহ ৯টি মামলার আসামি উপজেলার মীরডাঙ্গী পাইকার বস্তি এলাকায় তমিজ উদ্দীনের পুত্র শাহাজান আলী (ভুলু) (৪৭)। তার বাড়িতে পুলিশের একটি দল রাতে অভিযান চালায়। ফেন্সিডিল সহ ভুলু কে আটক করার সময় থানার এএসআই গৌতম ও সাদেকুল ধস্তাধস্তির এক পর্যায়ে আহত হয়। এএসআই সাদেকুল মুঠোফোনে বলেন, একজন অপরাধীকে ধরতে গেলে সে পালানোর চেষ্ঠাকরবেই । তাছাড়া সেখানে তেমন কোন ঘটনা ঘটেনি উভয়ের মধ্যে ধস্তাধস্তি হয়েছে।এপ্রসঙ্গে স্থানীয় শাহাজান আলী নামীয় এক ব্যাক্তি জানান, পুলিশ তাকে ধরতে বিকাল থেকে ওৎ পেতে ছিল। প্রথমে লুঙ্গি পরে দুজন পুলিশ সদস্য ভুলুর কাছে ফেন্সিডিল কিনতে যায়। ফেন্সিডিল দেওয়ার সময় অন্যান্য পুলিশ সদস্যরা তাকে আটক করার চেষ্ঠা করে। এক পর্যায়ে এএসআই গৌতমের হাতের আঙ্গুলে কামড় দেয়। এরপরেও পুলিশ তাকে ছাড়েনি, আটকের পর তাকে বাড়ির ভিতরে নিয়ে গিয়ে বলেন, কোথায় কোথায় মাদক আছে? এরপর তার দেওয়া তথ্যমতে বিভিন্ন জায়গা থেকে ফেন্সিডিল উদ্ধার করে পুলিশ।এব্যাপারে আহত এএসআই গৌতমের মুঠোফোনে যোগাযোগ করা হলে তিনি ফোন রিসিফ করেনি। থানায় গিয়ে জানা যায় তিনিবিশ্রাম নিচ্ছেন।এব্যাপারে থানা অফিসার ইনচার্জ গুলফামুল ইসলাম মন্ডল বলেন, পুলিশ অপরাধীদের ধরতে গেলে তারা পালানোর চেষ্ঠা করবেই। তাছাড়া সেখানে আহত হওয়ার মতো কোন ঘটনা ঘটেনি। উভয়ের মধ্যে ধস্তাধস্তি হয়েছে। আটককৃত ভুলুর বিরুদ্ধে মাদকদ্রব্য আইনে ৩৬ (১)সারনির ১৪(খ) ধারায়  মামলা হয়েছে।