গাইবান্ধা স্পন্দন শিল্পীগোষ্ঠীর ৩৪তম প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী পালিত


প্রকাশের সময় : জানুয়ারি ১৮, ২০২৪, ৬:৪৬ অপরাহ্ণ / ৪৫
গাইবান্ধা স্পন্দন শিল্পীগোষ্ঠীর ৩৪তম প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী পালিত

উত্তম সরকার:

গাইবান্ধার ঐতিহ্যবাহী সাংস্কৃতিক প্রতিষ্ঠান স্পন্দন শিল্পীগোষ্ঠীর ৩৪ তম  প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উপলক্ষে জানুয়ারি সন্ধ্যায় স্থানীয় পাবলিক লাইব্রেরীতে আয়োজন করে পুরস্কার বিতরণ ও সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান । এতে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন গাইবান্ধা সরকারি কলেজের অধ্যক্ষ প্রফেসর মোঃ খলিলুর রহমান বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন গাইবান্ধা বেসরকারি সংগঠন গণ উন্নয়ন কেন্দ্রের নির্বাহী প্রধান এম আব্দুস সালাম ।অনুষ্ঠানের শুরুতেই স্বাগত বক্তব্য রাখেন স্পন্দন শিল্পীগোষ্ঠীর সাধারণ সম্পাদক সাংবাদিক উত্তম সরকার ।এছাড়াও আলোচনায় অংশ নেন প্রধান অতিথি সরকারি কলেজের অধ্যক্ষ প্রফেসর মোহাম্মদ খলিলুর রহমান গণ উন্নয়ন কেন্দ্রের  নির্বাহী প্রধান এম আব্দুস সালাম ।স্পন্দন শিল্পীগোষ্ঠীর সভাপতি রাগীবহাসান চৌধুরী হাবুলের সভাপতিত্বে  আলোচনায় অংশ নেন কবি এডভোকেট কাসেম ইয়েসবির কবি ও কলেজ শিক্ষক প্রতিনিধি নাসরিন রেখা গাইবান্ধা বিস্ময় সংগীত বিদ্যালয়ের প্রতিষ্ঠাতা  মোহাম্মদ আলী  জেলা শিল্পকলা একাডেমীর নৃত্য প্রশিক্ষক সংগীত শিল্পী সিরাজুল ইসলাম সোনা সারেগামাপা সংগীত বিদ্যালয় এর সাধারণ সম্পাদক জাহাঙ্গীর কবির রাহাত সাংবাদিক সঞ্জয় সাহা প্রমূখ ।পরে স্পন্দনের শিল্পীরা সংগীত নৃত্য আবৃত্তি পরিবেশন করে ।৩৪তমপ্রতিষ্ঠা বার্ষিকী উপলক্ষে সপ্তাহব্যাপী অনুষ্ঠানে মধ্যে ছিল শিশু-কিশাদের মাঝে সংগীত নৃত্য আবৃত্তি চিত্রাংকন প্রতিযোগিতা ।চারটি বিভাগের বিজয়ী ৫৪ জন শিশু কিশোরকে পুরস্কৃত করা হয়। উল্লেখ্য স্পন্দন শিল্পীগোষ্ঠী ১৯৮৯ সালের ৩১শে ডিসেম্বর আত্মপ্রকাশের পর থেকেই গাইবান্ধার একমাত্র সচল শিশু সংগঠন হিসেবে সমাদৃত ।যদিও সংগীত নিত্য আবৃত্তি নাট্যচর্চার পাশাপাশি সামাজিক দায়বদ্ধতা থেকেও তারা বিভিন্ন কার্যক্রম অব্যাহত রেখেছে । সংগঠনটি জাতীয় সকল দিবসকে সামনে রেখে বিভিন্ন আয়োজন করে থাকে আর এই আয়োজন এর অনেকটা অংশ জুড়ে থাকে শিশু কিশোরদের অংশগ্রহণ যা এলাকায় স্পন্দন শিল্পীগোষ্ঠী শিশুদের কাছে একটি প্রিয় নাম। আত্মপ্রকাশ করার পর থেকেই সাংস্কৃতিক ক্রমবিকাশের পাশাপাশি সামাজিক কর্মকাণ্ডে অংশগ্রহণ করে থাকে। বিশেষ করে শিশুদের শারীরিক মানসিক উৎকর্ষ বিকাশ সাধনে তারা বিভিন্ন পদক্ষেপ গ্রহণ করে কার্যক্রম পরিচালনা করে আসছে। তারা বাংলাদেশ শিশু একাডেমি সহ বিভিন্ন সংগঠন থেকে কৃতিত্ব সনদ ও পুরস্কার অর্জন করেছে। সব মিলিয়ে গাইবান্ধার সাংস্কৃতিক অঙ্গনে স্পন্দন শিল্পীগোষ্ঠী একটি সুপরিচিত নাম।